তারেক রহমানসহ ১৭ জনের যাবরজ্জীবন এবং ২০ জনের মৃত্যুদণ্ড

তারেক রহমানসহ ১৭ জনের যাবরজ্জীবন এবং ২০ জনের মৃত্যুদণ্ড

তারেক রহমান-সহ ১৭ জনের যাবরজ্জীবন এবং ২০ জনের মৃত্যুদণ্ড

অবশেষ দীর্ঘ ১৪ বছর পর ঘোষিত হলো ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার রায় । আজ ১০ অক্টোবর, দুপুর ১২ টায় জনাকীর্ন আদালতে বিচারক এ রায় ঘোষণা করেন। এ রায়ে মোট ৩৭ জনের সাঁজা শোনানো হয়। এই ৩৭ জনের মধ্যে বিএনপি নেতা লুৎফুর রহমান বাবর-সহ ২০ জনকে মৃত্যুদন্তের আদেশ দিয়েছেন বিচারপতি । এছাড়া বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমান-সহ ১৭ জনেকে যাবরজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন।

তারেক রহমানআজ থেকে ১৪ বছর আগে যখন বিরোধী দল ক্ষমতায় তখন আওয়ামী লীগের সন্ত্রাসীবিরোধী সমাবেশে চালানো হয় এই গ্রেনেড হামলা। নৃশংস ওই গ্রেনেড হামলার উদ্দেশ্য ছিলো বার্তমান ক্ষমতাশীল আওয়ামী-লীগ সরকার শেখ হাসিনা কে প্রানে হত্যা করা। ২০০৪ সালের ওই গ্রেনেড হামলা স্তব্ধ করে দিয়েছিল বাংলাদেশকে।

গত ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮ তারিখে রাষ্ট্র ও আসামিপক্ষের যুক্তিতর্ক শেষে ঢাকার দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনাল-১ এর বিচারপতি শাহেদ নূর উদ্দিন আজকের এ রায় ঘোষণার দিন ধার্য কর দিয়েছেন।

দেড়িতে হলেও মিললো সেই ১৪ বছর আগে আওয়ামী লীগের সন্ত্রাসীবিরোধী সমাবেশে ঘটে যাওয়া ভয়াবহ নৃশংস ওই গ্রেনেড হামলার বিচার।

রাজধানীর এক নম্বর দ্রুতবিচার ট্রাইব্যুনালের বিচারপতি মো: শাহেদ নূর উদ্দিন বেলা ১২ টায় সেই সময়ে গ্রেনেড হামলায় অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে হওয়া হত্যা ও বিস্ফোরক আইনে করা আলোচিত দুই মামলার রায় ঘোষণা করেন।

অন্যদিকে এ রায়কে ঘিরে জেনো কোন ধরনের গোলযোগ সৃষ্টি না হয়। সে জন্য সকাল থেকেই নাজিমউদ্দিন রোড ও আশপাশের এলাকায় নেয়া হয়েছে কঠোর নিরাপত্তা। গুরুত্বপূর্ণ বিভিন্ন পয়েন্টে অবস্থান নিয়ে আছেন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা ।

Add a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *